PicsArt এর সাহায্যে 3D Font তৈরী করুন,এর সাহায্যে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের জন্য logo তৈরী করতে পারবেন(Mega Post)

সসালামু আলাইকুম
আমার পোষ্টে আপনাকে স্বাগতম৷সম্পূর্ন পোষ্টটি পড়ে ভালোভাবে বুঝার চেষ্টা করুন৷
3D Font
কী বানাবেন?কী দিয়ে তৈরী করবেন?কীভাবে তৈরী করতে হয়? –
কী বানাবেন?
3D font
এটা কী জিনিস তা জানেন না?তাহলে নিচের দিকে আমি তৈরী করে দেখাব ৷তখন না হয় দেখে শিখে নিবেন৷
কী দিয়ে তৈরী করবেন?
এজন্য আপনার লাগবে PicsArt Software৷যা আশা করি সকলেরই আছে তাই আর লিংক দিলাম না৷অনেকে বলতে পারেন এটা দিয়ে কি সম্ভব 3D Font বা Logo তৈরী করা৷জ্বি,ভাইয়া সম্ভব৷
যারা জানে তারাই পারে আর যারা জানেনা তারা পারে না-এই পারে না দের জানানোর জন্যই Trickbd
পারেন না বলে লজ্জিত হবেন না,শিখার চেষ্টা যদি না করে থাকেন তাহলে লজ্জিত হওয়া উচিত৷
কীভাবে বানাতে হয়
আরে ভাইয়া,এখন আসেন কাজের কথায়৷কীভাবে বানাবেন
এটা তো খুব সহজ৷এই সহজ জিনিসটাই আজ আপনাদের শিখাব৷
আরেকটা কথা বলব- সহজ কথাটা যেহেতু বলে ফেললাম তাই কথাটা না বলে পারছি না
এটা শুধু তাদের জন্যই সহজ যারা এটা পারে৷আর যারা পারে না তাদের এই সহজ বিষয়টা কতটা কঠিন মনে হয় ৷ এটা যারা পারে তারা বুঝবে না৷

যারা ট্রিকসটা পারেন তারা পোষ্টটি থেকে বের হয়ে যান৷যারা পারেন না তারা সামনের দিকে পড়তে থাকেন
শুরু করা যাক
first picsart এ প্রবেশ করুন
Background নির্বাচন
এটা নির্ভর করে আপনার পছন্দের উপর৷আপনি আপনার ইচ্ছামত যেকোনো একটু background নির্বাচন করুন৷
আমি white background বেছে নিলাম৷
আপনার site এর নাম বা যেই লেখাকে আপনি 3D করতে চান তা
লিখুন৷
কিভাবে কোথায় লিখবেন তা screenshot এ দেখুন

লেখায় স্টাইল আনা
এটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়৷আপনার logo টিকে সকলের দৃষ্টি আকর্ষিত করতে চাইলে সুন্দর একটি স্টাইলযুক্ত Font ব্যবহার করতে হবে৷
নেট থেকে বিভিন্ন ধরনের স্টাইলযুক্ত font download দিয়ে picsart এ সেটআপ করে নিতে পারেন৷
আমি যেগুলো দেওয়া আছে সেগুলোই ব্যবহার করলাম-
লেখা রং করা
এখন লেখা রং করা যাক৷তবে একটু অন্যরকম ভাবে -ব্যাপারটা বুঝিয়ে বলতেছি-
লেখাতে তো সাদা কালো সবুজ এসব রং করা তো simple ব্যাপার৷এতে সবাই তো অতোটা আকর্ষিত হবে না৷
যদি লেখার মাঝে একটি ছবি এড করা যায় তবে কেমন হয়
বুঝেন নাই বিষয়টা….তাহলে try করলেই বুঝতে পারবেন৷
কীভাবে করবেন তা আমি বলে দিচ্ছি-
Color এ ক্লিক করুন, তারপর texture নামে অপশন এ ক্লিক করুন৷তখন একটি অপশন দেখতে পাবেন ৷ + চিহ্নিত অংশে ক্লিক করুন…..
তারপর ছবি select করলেই হবে৷৷৷৷৷
এভাবে না বুঝলে screenshot দেখুন



3D Style আনা
এজন্য আপনি Shadow অপশন এ যান৷এখানে আপনি কয়েকটি অপশন দেখতে পাবেন ৷যেমন: color,position ইত্যাদি ইত্যাদি ৷
ইচ্ছামত color choose করুন৷
ও একটা কথা বলাই তো হলো না shadow কাজ টা কি?
এটি প্রয়োগ করলে লেখার পেছনে ছায়া আসবে যা লেখাকে 3D রুপ দিবে৷
এটা সঠিক position এ রাখতে পারলেই লেখা দেখতে ভালো দেখা যাবে৷
screenshot দেখে বুঝার চেষ্টা করুন৷



কিছু উদাহরণ
এটা দিয়ে যে শুধু একই রকম 3D font তৈরী করা যাবে তা নয়৷৷৷৷৷৷নিজের মনের মতো করে তৈরী করতে পারবেন৷
উপরে তো একটি 3D Font দেখতে পেলেন৷এখন আরো কিছু font দেখে নিন


Save Picture
যেই pic টি তৈরী করলেন সেটা তো এখন save করে রাখতে হবে,নয়তো পরিশ্রমই বৃথা যাবে৷
কিভাবে save করবেন তা তো আর বলে দিতে হবে না৷এটা সবাই পারে ৷তবুও আমি দেখিয়ে দিলাম….



গুরুত্বপূর্ন কিছু কথা
আমি 3D font তৈরী করার ক্ষেত্রে কয়েকটা জিনিসকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে থাকি ৷কেননা আমার মনে হয় সেই জিনিসগুলোতে ঠিক মতো কাজ করতে না পারলে font টা দেখতে সুন্দর দেখাবে না৷
জিনিসগুলো কি তাই তো বললাম না….এখন বলি তবে
Color
Font টাতে যদি সঠিক কালার না দিতে পারি তবে font টা দেখতে সুন্দর দেখাবে না ৷তাই এই জিনিসটাকে বিশেষ গুরুত্ব দিতে হবে৷
আমি মূলত কালারের বদলে ছবি এড করে থাকি৷কীভাবে ছবি এড করতে হয় তা তো আগেই বলছি৷ছবিটার quality ভালো হলে লেখাটাও ভালো হয়৷

Shadow

Color
এটি আসলে কি,এটা দিয়ে কী হয়৷লেখার পিছনে একটা কালার আসে(যা আপনারা ইতিমধ্যে দেখেছেন)সেটাই shadow কালার৷এই জিনিসটার আবার কী কাজ থাকতে পারে ৷এটাই আসল গুরুত্বপূর্ণ৷
এই shadow কালারই লেখাকে 3D রূপ দেয়৷দেখতেও সুন্দর দেখা যায়৷
Font কালার এর সাথে Adjust করে এই রং নির্বাচন করা উচিত৷

Position
এই জিনিসটা একটু ভালোভাবে করবেন৷কেননা এটা যদি ঠিকমতো না দেন তবে Font টা দেখতে ভালো হবে না৷
Text Style অনুযায়ী shadow position ঠিক করা উচিত৷

Opacity
আপনি font টা যদি 3 D করতে চান তবে এখানে আপনার কাজ করতে হবেই৷এখানে যে পরিমাণ opacity নির্ধারণ করবেন font চাও ততটুকু 3D রূপ পাবে৷

Blur
এটাও অনেকটা opacity এর সাথে সংযুক্ত৷এখানে blur এর মাত্রা 0 করে দিতে পারেন আর একটা কথা opacity মাত্রা 100 করে দিবেন৷
এতে লেখাটা পুরোপুরি 3D রূপ পাবে৷তবে এটা আপনার পছন্দ অনুযায়ী করবেন৷

এই ছিল আমার আজকের ট্রিক
আগেই যাবেন না,আরো কিছু কথা বাকি আছে৷
Some Example
ভাইয়ারা এতোক্ষণ তো অনেক কিছু শিখলেন এখন কিছু Demo দেখবেন না৷
এভাবে আরো কত রকমের font তৈরী করা যায়,তা ভাবা অসম্ভব৷


একটি ট্রিকস
একথাটা আগেও বলছি আবারও বলতেছি ৷
নেটে অনেক style font পাওয়া যায় ৷picsart এ দেওয়া font গুলো আপনার নাও ভালো লাগতে পারে৷এজন্য আপনার পছন্দ অনুযায়ী নেট থেকে download করে নিবেন৷আর picsart এ save করবেন৷
যেহেতু পোষ্টটা এ বিষয়ে না,তাই আর এদিকে এগুলাম না৷তবুও ছোট করে বলে দেই
file download দিয়ে file এ প্রবেশ করুন৷ঢুকার পর যতগুলো file দেখতে পাবেন সবগুলো select করে picsart folder এ গিয়ে fonts folder এ extract করবেন৷
পরিশেষে
আপনাদের হয়তবা ততোটা খুশি করতে পারলাম না,আর হয়তো আমার font edit করা ভালো হয় নি৷
কিন্তু আমার মনে হয় আমি যেমনই করি না কেন আপনি এই ট্রিকস প্রয়োগ করে আমার চেয়ে ভালো photo edit করতে পারবেন৷
আর যারা পারেন তাদের তো আগেই চলে যেতে বলছি৷
তারা তো আর এগুলো পড়তেছে না৷
যদি করো মনে কোন কষ্ট দিয়ে থাকি তাহলে মাফ করে দিবেন৷
এখানেই আমার পোষ্টটি শেষ করছি৷
ন্যবাদ

Share This Post
About MainitBD Author

শিক্ষা জাতীর মেরুদন্ড! শিখবো, না হয় শেখাবো।

Leave a Comment