ড্যাটা বাঁচাতে গুগোলের নতুন অ্যাপস, ড্যাটালি! আর অযথা আপনার মেগাবাইট কাটবে না…!!

আসসালামু আলাইকুম

আশাকরি সবাই ভালো আছেন? কেননা ট্রিকবিডির সাথে থাকলে সবাই ভালোই থাকে! আমিও আলহামদুলিল্লাহ্‌ ভালোই আছি। এবারে কাজের কথায় আসি?

বর্তমানে এনড্রেয়েড মোবাইলের সবচেয়ে বড় সমস্যা হচ্ছে, অধিক ড্যাটা খরচ! আর এই সমস্যার সমাধান হিসাবে এই এপ্লিকেশনটি তৈরি করেছে গুগোল কম্পানি। ডেটালি নামের এই অ্যাপটির মাধ্যমে মূল্যবান ডেটা কোথায় কীভাবে খরচ হচ্ছে তা যেমন জানা যাবে তেমনি ডেটা সাশ্রয়ও করা যাবে।

  • Google Play Store Link (4.86 MB) {Launched on 29-11-2017}
  • ডেটালির ডেটা সেভার ফিচারটির মাধ্যমে একজন অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহারকারী ঠিক করে দিতে পারবেন কোন কোন অ্যাপ ডেটা ব্যবহার করতে পারবে এবং আপডেট নিতে পারবে। এর ফলে ৩০ শতাংশ পর্যন্ত বাড়তি ডেটা খরচ কমানো সম্ভব হবে।

    অ্যাপটিতে ডেটা সেভার বাবল নামে একটি অপশন থাকবে। একজন ব্যবহারকারী যখন কোনো অ্যাপের মাধ্যমে ডেটা ব্যবহার শুরু করবেন, তখন এই বাবলের মাধ্যমে ডেটা ব্যবহারের পরিমাণ দেখা যাবে। চাইলে সেখান থেকেই ডেটার ব্যবহার বন্ধ করে দেওয়া যাবে।

    এছাড়া প্রতিদিনের ব্যবহারের উপর আলাদা আলাদা রিপোর্টও দেবে ডেটালি। ফলে ডেটা খরচের পরিমাণ ট্র্যাক করা যাবে সহজেই।

    চলুন দেখে নেই ফিউচার সমূহঃ
    ● DATA SAVER – সর্বোনিম্ন ৩০% ড্যাটা সেভ করুন* আর প্রত্যেকটি এপস্ আলাদা আলাদা ভাবে নিয়ণত্রণ করুন।

    ● DATA SAVER BUBBLE – প্রত্যেকটি এপস্ ব্যবহারের সময় একটি বাবল দেখা যাবে আর সেইখান থেকে এপস্ টির ড্যাটা খরচ দেখা যাবে এবং নিয়ণত্রণও করা যাবে।


    ● DATA USAGE METRICS – সকল এপসের ড্যাটা খরচের ইতিহাসও দেখা যাবে।

    ● WI-FI FINDER– এই সেবাটির মাধ্যমে আপনি আপনার নিকটস্থ সকল ওয়াইফাই এর ম্যাপ দেখতে পাবেন।

    এই বার ইউজার ইন্টারফেস গুলো দেখে নেইঃ

    ১. ডাউনলোড হয়ে গেলে ওপেন করুন আর কন্টিনিউ করুন।

    ২. এইবার আপনার ফোনের ইউজার এক্সেস টি অন করতে হবে।

    ৩. দেখুন এক্সেস অফ করা আছে। এটিকে অন করুন।

    ৪. এই বাটনটি অন করে দিন।

    ৫. এখন ইয়েস আই এগ্রি বাটনে চাপ দিয়ে এপসটির মেইন ইন্টারফেস এ ডুকে পড়ুন।

    ৬. এই বার সেট আপ ড্যাটা সেভার লেখায় চাপ দিন।

    ৭. গুগোল এই সিস্টেমটি চালু হবে একটি ভিপিএন এর মাধ্যমে। তাই আপনার কাছে পারমিশন চাইছে। কোনো চিন্তা নেই, এটি যেহেতু গুগোলের এপ, তাই Allow করে দিন।

    ৮. এই বার ভিপিএন টিকে পারমিশন দিতে ওকে চাপুন। ব্যাস আপনার কাজ শেষ। এইবার বাকি সব কাজ গুগোলের!

    ভালো লাগলে কমেন্টে জানাবেন, আর যেকোনো প্রয়োজনে ফেসবুকে আসতে পারেন?

    Me On Facebook

    সুস্থ্য থাকুন, ভালো থাকুন! ট্রিকবিডির সাথেই থাকুন। (ধন্যবাদ)

    Share This Post

    Leave a Comment