iphone 15 pro max price in bangladesh | (official-unofficial ও বিস্তারিত)

Apple iphone 15 pro max price in bangladesh

iphone 15 pro max price in bangladesh, apple iphone 15 pro max price in bangladesh, iphone 15 pro max price in bangladesh unoffical

আসসালামু আলাইকুম বন্ধুরা, কেমন আছেন সবাই,  সবাইকে জানাই পবিত্র মাহে রমজানের শুভেচ্ছা আজকে আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি iphone 15 pro max price in bangladesh(আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর দাম কত) নিয়ে সম্পূর্ণ আলোচনা, চলুন শুরু করা যাক।

আপনারা অনেকেই অ্যাপেল আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর দাম কত জানতে চান,  এবং এই মোবাইলের বিস্তারিত জানতে চান তাদের জন্য আজকের এই পোস্ট,  এর পোস্টে আমি এই ফোনের সকল বিষয় নিয়ে আলোচনা করব। বাংলাদেশে এখন প্রতিটা মোবাইলের দুইটি দাম হয়ে থাকে প্রথমটি হচ্ছে অফিশিয়াল এবং আনঅফিসিয়াল,  নিচে আমি অফিসিয়াল এবং আনঅফিসিয়াল দুটো  দাম আপনাদের মাঝে তুলে ধরব। 

iphone 15 pro max price in bangladesh official

প্রথমেই এই মোবাইলের অফিশিয়াল দাম জেনে নিনঃ

  • অ্যাপেল আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর দাম  অফিসিয়াল দাম ২১৯,৯৯৯ টাকা ২৫৬ জিবি।
  • এছাড়াও ৫১২ জিবি যেটা তার দাম, ২৫৯,৯৯৯ টাকা।
  • তাছাড়া ১ টিবি জিবি যে মোবাইলটা তার অফিসিয়াল দাম, ২৯৯,৯৯৯ টাকা মাত্র।

Read More: iphone 14 plus price in bangladesh(iphone 14 plus এর দাম বাংলাদেশে অফিসিয়াল বা আন অফিসিয়াল)

iphone 15 pro max price in bangladesh unofficial

এবার আপনি এই মোবাইলের আনঅফিসিয়াল দাও জেনে নিনঃ

  • ২৫৬ জিবি যেটা তার আনঅফিসিয়াল দাম ১৪৯,৯৯৯ টাকা।
  • আবার  ৫১২ জিবি যেটা তার দাম, ১৮৯,৯৯৯ টাকা।
  • তাছাড়া ১ টিবি জিবি যে মোবাইলটা তার আনঅফিসিয়াল দাম,২৩০,৯৯৯ টাকা মাত্র।

এই মোবাইলের দাম অনেক সময়ে আনঅফিসিয়াল কোনগুলোর দাম আমাদের সামর্থ্য অনুযায়ী হয়ে থাকে কিন্তু অফিসিয়াল মোবাইলের দাম তুলনামূলক আনঅফিসিয়াল মোবাইলের থেকে বেশি হয়ে থাকে,  কিন্তু সিকিউরিটি এর দিকে দেখলে আনঅফিসিয়াল মোবাইলের থেকে অফিসিয়াল মোবাইল গুলো বেশি সুযোগ সুবিধা দেওয়া হয়ে থাকে। 

আইফোন ১৫ প্রো ম্যাক্স এর Full Specifications

এই ফোন সম্পর্কে বলতে গেলে আইফোনের মধ্যে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আইফোন প্রো ম্যাক্স,  এই মোবাইলটা অন্যান্য মোবাইলের থেকে একটু আলাদা ফিউচার রয়েছে।  যা আপনাকে মুগ্ধ করবে,  চলুন তাহলে এর বিস্তারিত জানা যাক।

  • এই ফোনে আপনি কয়টা কালার পাবেনঃ  চারটা কালার পাবেন।
  1. Black Titanium, 
  2. White Titanium, 
  3. Blue Titanium, 
  4. Natural Titanium.
  • এই ফোনের Connectivity গুলো কেমনঃ এর সম্পর্কে বলতে গেলে প্রথমেই আসে 

  1. নেটওয়ার্কঃ এই ফোনে আপনি 2G, 3G, 4G, এবং সব থেকে বেশি সুবিধা হচ্ছে 5G নেটওয়ার্ক পাবেন।
  2. সিমঃ Dual SIM (Nano-SIM and eSIM) ব্যবহার করতে পারবেন, আপনারা নিশ্চয়ই ESIM সিম সম্পর্কে জানেন যদি না জানেন অবশ্যই কমেন্ট করবেন।
  3. WLAN: WLAN হিসেবে থাকছে ডুয়াল-ব্যান্ড, ওয়াই-ফাই হটস্পট যা অন্য ফোনে তুলনায় অত্যন্ত ভালো।
  4. ব্লুটুথঃ v5.3, A2DP, LE যা আপনার খুবই কাজে দিবে।
  5. জিপিএসঃ আমাদের দৈনন্দিন জীবনে জিপিএস খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে, সে কথা মাথায় রেখে এই ফোনে GPS (L1+L5), GLONASS, GALILEO, BDS, QZSS, NavIC  দেওয়া হয়েছে।
  6. রেডিওঃ আপনি অনলাইনের মাধ্যমে ব্যবহার করতে পারবেন বা কোন অ্যাপস ইউজ  করে ব্যবহার করতে পারবেন।
  7. ইউএসবিঃ  usb হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে ইউএসবি টাইপ-সি,  যা টাইপ বি এর তুলনায় অত্যন্ত ভালো,  কারণ টাইপ বি অত্যন্ত দ্রুত  নষ্ট হয়ে যাওয়া সম্ভাবনা থাকে কিন্তু,  টাইপ সি  খুবই উন্নত হওয়ায় তাড়াতাড়ি নষ্ট হয় না। এবং একই সাথে  থাকছে 3.0, ডিসপ্লেপোর্ট।
  8. ওটিজিঃ হ্যাঁ আপনি এই ফোনে ওটিজি ব্যবহার করতে পারবেন।
  9. এনএফসিঃ হ্যাঁ আপনি এটা ব্যবহার করতে পারবেন।

Read More: iphone 11 Price in Bangladesh(আইফোন ১১ এর দাম বাংলাদেশে অফিসিয়াল বা আন অফিসিয়াল)

  • চলুন এবার জেনে নেওয়া যাক এই ফোনের বডি সম্পর্কে।

  1. আকারঃ সাধারণত এই ফোনটি 6.7 ইঞ্চি ।
  2. রেজোলিউশনঃ 1290 x 2796 পিক্সেল (460 ppi) যার জন্য আপনি খুবই ভালো মতো ব্যবহার করতে পারবেন।
  3. প্রযুক্তিঃ LTPO সুপার রেটিনা XDR OLED টাচস্ক্রিন যা আপনার জন্য একের মধ্যে অনেক।
  4. সুরক্ষাঃ আমরা সবাই জানি সুরক্ষার দিকে আইফোন অন্য ফোনের তুলনায় অনেক উন্নত ,সেজন্য এই ফোনেস্ক্র্যাচ-প্রতিরোধী সিরামিক গ্লাস, ওলিওফোবিক আবরণ  দেওয়া হয়েছে।
  5. বৈশিষ্ট্যঃ যদি বৈশিষ্ট্যের কথা বলা হয় তাহলে দেখা যাচ্ছে এই ফোনে, 120Hz, HDR10, Dolby Vision, 2000 nits (সর্বোচ্চ), সর্বদা-চালু প্রদর্শন করে থাকে।
  • জেনে রাখুন সামনের ও পিছনের ক্যামেরা সম্পর্কে।

আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর সামনের ও পিছনের ক্যামেরা

  1. রেজোলিউশনঃ এই ফোনে সামনের ক্যামেরায়, ডুয়াল 12 মেগাপিক্সেল + SL 3D  ব্যবহার করা হয়েছে ও পিছনের ক্যামেরায়, কোয়াড 48+12+12 মেগাপিক্সেল + TOF 3D LiDAR স্ক্যানার ব্যবহার করা হয়েছে  যা অন্য ফোনের তুলনায় খুবই ভালো।
  2. বৈশিষ্ট্যঃ ক্যামেরার বৈশিষ্ট্য এর দিকে তাকালে দেখা যায়,  সামনের ক্যামেরায়, F/1.9 অ্যাপারচার, PDAF, HDR, 1/3.6″, গভীরতা / বায়োমেট্রিক্স সেন্সর  ব্যবহার করা হয়েছে,  ও পিছনের ক্যামেরায় ডুয়াল পিক্সেল PDAF, সেন্সর-শিফ্ট OIS, আল্ট্রাওয়াইড, পেরিস্কোপ টেলিফটো, 5x অপটিক্যাল জুম, গভীরতা এবং আরও অনেক কিছু ব্যবহার করা হয়েছে।
  3. ভিডিও রেকর্ডিংঃ অনেকে আইফোন দিয়ে ভিডিও এডিটিং করতে খুবই ভালোবাসেন তাদের কথা মাথায় রেখে অ্যাপেল আইফোন ১৫ প্রো ম্যাক্স সামনের ক্যামেরায় ব্যবহার করেছেন , 4K (2160p), gyro-EIS, সিনেমাটিক মোড, ও পিছনের ক্যামেরায় ব্যবহার করেছেন 4K (2160p), Dolby Vision HDR, 10-bit HDR, স্টেরিও সাউন্ড rec., সিনেমাটিক মোড, ProRes।
  • জেনে রাখুন এই ফোনের ব্যাটারি সম্পর্কে।

  1. ধরন এবং ক্ষমতাঃ অন্যান্য মোবাইল থেকে আইফোনের ব্যাটারি এর চার্জ অনেক সময় থাকে,  এজন্য এই ফোনের ব্যাটারিতে ব্যবহার করা হয়েছে লিথিয়াম-আয়ন – mAh (অ অপসারণযোগ্য)।
  2. দ্রুত চার্জিংঃ অনেক সময় আপনাদের লোডশেডিং হতে পারে সেই কথা মাথায় রেখে এই ফোনে দ্রুত চার্জিং এর সিস্টেম দেওয়া হয়েছে,  দ্রুত চার্জিং (30 মিনিটে 50%)USB পাওয়ার ডেলিভারি 2.0, এছাড়াও ওয়্যারলেস চার্জিং  ব্যবস্থা রয়েছে যা দ্রুত ওয়্যারলেস চার্জিং (15W MagSafe, 7.5W Qi চৌম্বকীয়)।
  • জেনে রাখুন এই ফোনের কি কি ক্ষমতা রয়েছে।

  1. অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করা হয়েছে iOS 17।
  2. চিপসেট হিসেবে থাকতে Apple A17 Pro (3 nm)। 
  3. Ram এর কথা বলতে গেলে বিভিন্ন ধরনের হয়ে থাকে আর এই Ram এর উপর নির্ধারণ করে এই মোবাইলের দাম।  সাধারণত এটার Ram ৪ জিবি।
  4. প্রসেসর হিসাবে ব্যবহার করা হয়েছে হেক্সা-কোর, 3.46 GHz পর্যন্ত,  যা অত্যন্ত ভালো।
  5. জিপিইউ হিসেবে থাকছে Apple GPU (5-কোর গ্রাফিক্স)।
  • আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর জেনে নিন এই ফোনে কী স্টোরেজ থাকছে ।

  1. ROM256 / 512 GB / 1 TB (NVMe) সাধারণত এই তিনটা হয়ে থাকে। 
  2. এই ফোনে আপনি লাউডস্পীকার হিসেবে থাকছেন(স্টিরিও স্পিকার)। 
  3.  নিরাপত্তাঃ আমরা জানি নিরাপত্তার দিক থেকে অ্যাপেল অন্য মোবাইলে থেকে এগিয়ে রয়েছে তার জন্য এই মোবাইলে ব্যবহার করা হয়েছে মুখ চিন্নিত করা ✅অ্যাপল ফেস আইডি,  যা আপনাকে খুবই উন্নত নিরাপত্তা প্রদান করবে। 
  4. এই ফোনে আরও থাকছে নোটিফিকেশন লাইট এবং ✅সতর্কতার জন্য LED ফ্ল্যাশ।
  • এই মোবাইলে আরো নতুন কিছু সুবিধা রয়েছে।

  1. সেন্সর হিসাবে থাকছেঃ ফেস আইডি, অ্যাক্সিলোমিটার, প্রক্সিমিটি, জাইরোস্কোপ, ই-কম্পাস, ব্যারোমিটার এর মত অত্যাধুনিক সেন্সর। যা আপনার মোবাইলকে করবে আরো আকর্ষণীয় ও সুন্দর। 
  2. অ্যাপল পে (ভিসা, মাস্টারকার্ড, AMEX প্রত্যয়িত)
  3. – Ultra Wideband (UWB) support করে থাকে।
  4. – স্যাটেলাইটের মাধ্যমে ইমার্জেন্সি এসওএস (এসএমএস পাঠানো/গ্রহণ করা

iPhone 15 Pro Max বৈশিষ্ট্য

আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর দাম কত, আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স

  • মহাকাশ-গ্রেড টাইটানিয়াম দিয়ে তৈরি এবং বিভিন্ন রঙের সাথে মিলিত।
  • টাইটানিয়াম বিল্ড এটিকে বাজারে সবচেয়ে হালকা এবং সবচেয়ে টেকসই স্মার্টফোন করে তুলেছে।
  • দর্শনীয় দৃশ্য দেখার জন্য LTPO সুপার রেটিনা XDR OLED ডিসপ্লে ব্যবহার করা হয়েছে বলে জানা গেছে।
  • ডায়নামিক আইল্যান্ড আপনাকে ফোনে প্রতিটি গুরুত্বপূর্ণ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে অবহিত রাখতে পারে।
  • সর্বশেষ সফ্টওয়্যার সহ A17Pro বায়োনিক চিপসেট ফিউশন ত্রুটিহীন কর্মক্ষমতা নিশ্চিত করে থাকে।
  • অত্যাধুনিক মনস্টার 3nm সিপিইউ এবং প্রো-ক্লাস জিপিইউ ইমারসিভ মোবাইল গেমিং হিসাবে এই মোবাইলটি সাড়া ফেলেছে।
  • 48MP ট্রিপল ক্যামেরা সিস্টেম মাইক্রো ডিটেইলস এবং রঙ সহ মুগ্ধকর ছবি তুলতে এই মোবাই সক্ষম।
  • এটি শুধুমাত্র স্পেলবাইন্ডিং ভিডিও রেকর্ড করে না বরং VisionPro এর মাধ্যমে সেগুলিকে পুনরুজ্জীবিত করে তোলে।
  • একটি এক্সক্লুসিভ মাল্টি-ফাংশনাল অ্যাকশন বোতাম সুবিধা এবং নিয়ন্ত্রণকে উন্নত করে থাকে।
  • আপগ্রেড অপ্টিমাইজেশান সহ একটি উল্লেখযোগ্য ব্যাটারি একটি দীর্ঘ ব্যাটারি জীবন নিশ্চিত করে৷
  • ইউনিভার্সাল টাইপ-সি চার্জার দেওয়া হয়েছে যাতে ফোনটি দ্রুত চার্জ দেওয়া যায়।
  •  স্যাটেলাইট পরিষেবার মাধ্যমে নতুন যোগ করা রাস্তার ধারে সহায়তা যেতে যেতে মানসিক শান্তি প্রদান করে থাকে।

বৈশিষ্ট হিসাবে আরও রয়েছে।

The screen of the Apple iPhone 15 Pro Max is a 6.7-inch LTPO Super Retina XDR OLED with 1290 x 2796 pixels. Its design features two punch holes. The rear camera is a quad 48+12+12 Megapixel + TOF 3D LiDAR scanner that records 4K video and has strong image processing capabilities. The dual 12 MP SL 3D camera is located on the front. The mAh battery that powers the Apple iPhone 15 Pro Max has quick charging capabilities. It has an Apple GPU, 8 GB RAM, and a Hexa-core CPU that can reach 3.46 GHz. A 4 nm Apple A17 Pro (3 nm) chipset powers it. This mobile internal storage 256 GB, 512 GB, or 1 TB.

পরিশেষে

  iphone 15 pro max price in bangladesh today এর দাম জানতে চান তাদের জন্য ছিল আজকের এই পোস্ট, এখানে আপনারা আশা করছি আইফোন  ১৫ প্রো ম্যাক্স এর দাম সহ আর বিস্তারিত জানতে পেরেছেন, আরও কিছু জানতে অবশ্যেই কমেন্ট করবেন, এবং পোস্টটি শেয়ার করবেন, আসসালামু আলাইকুম।

Read More: iphone x এর মন মাতানো সব রিংটোন নিয়ে নিন আপনার এন্ড্রোয়েড ফোনের জন্য!সাথে পাচ্ছেন আরো অনেক মজার মজার ম্যাসেজটোন একটি মাত্র এপ এ!


Share This Post
About MainitBD Author

শিক্ষা জাতীর মেরুদন্ড! শিখবো, না হয় শেখাবো।

1 thought on “iphone 15 pro max price in bangladesh | (official-unofficial ও বিস্তারিত)”

  1. আইফোন ১৫ প্রো মাক্স যা ইউকে ভেরিয়েন্ট এটা বুঝবো কিভাবে। আমি ইউএসএ ভেরিয়েন্ট নিতে চাই না। এটা বুঝবো কি করে। এই ২ ভেরিয়েন্টের মধ্যে পার্থক্য কি? ইউএসএ ভেরিয়েন্ট এর অপারেটিং সমস্যা হয় তাছাড়াও সিম কাটতে হয়। জানালে খুশি হবো্

    Reply

Leave a Comment